ঢাকা মঙ্গলবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৫ ফাল্গুন ১৪২৬
২৬ °সে

এইচএসসি পরীক্ষার প্রস্তুতি ২০২০

এইচএসসি পরীক্ষার প্রস্তুতি ২০২০

ফিন্যান্স অ্যান্ড ব্যাংকিং

নির্মল ইন্দু সরকার

প্রভাষক

সেন্ট গ্রেগরি হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ, ঢাকা

প্রিয় এইসএসসি পরীক্ষার্থীবৃন্দ, তোমাদের জন্য আজ ফিন্যান্স বিষয়ের কিছু সৃজনশীল প্রশ্ন উত্তর দেয়া হলো।

ফাইভ-স্টার কর্পোরেশন একটি পাবলিক লিমিটেড কোম্পানি। ২০১৬ সালে কোম্পানিটি ১ কোটি টাকা মুনাফা অর্জন করেছে। কোম্পানিটি শেয়ারহোল্ডারদের মধ্যে ৫০ লক্ষ টাকা লভ্যাংশ হিসেবে বণ্টন করল। ২৫ লক্ষ টাকা ব্যবসায় বিনিয়োগ করল এবং অবশিষ্ট টাকা দিয়ে একটি সঞ্চিতি তহবিল সৃষ্টি করল।

ক. সরকারি অর্থায়নের মূল লক্ষ্য কী?

খ. ’বাংলাদেশ আমদানি নির্ভর দেশ’ - ব্যাখ্যা কর।

গ. ফাইভ-স্টার কর্পোরেশনের মুনাফা ২৫ লক্ষ টাকা ব্যবসায় বিনিয়োগ বলতে কী বোঝ?- ব্যাখ্যা কর।

ঘ. এ কোম্পানির সঞ্চিতি তহবিল সৃষ্টি কতটা যৌক্তিক বলে তুমি মনে কর? মতামত দাও।

উত্তর: ক. সরকারি অর্থায়নের মূল লক্ষ্য হলো সমাজকল্যাণ।

খ. প্রতিবছর বিপুল পরিমাণ প্রয়োজনীয় পণ্যসামগ্রী অন্যান্য দেশ থেকে আমদানি করা হয় বলে বাংলাদেশকে আমদানি নির্ভর দেশ বলা হয়। প্রতিবছর বিপুল পরিমাণে খাদ্যসামগ্রী, কাঁচামাল, মেশিনারিজ,ঔষধ,পেট্রোলিয়াম ইত্যাদি বিভিন্ন দেশ হতে আমদানি করা হয়। অপরপক্ষে বাংলদেশ হতে পাট ও পাটজাতদ্রব্য, তৈরি পোশাক, কৃষিজাত দ্রব্য ইত্যাদি রপ্তানি করা হচ্ছে। কিন্তু এ রপ্তানির চেয়ে বাংলাদেশকে আমদানি বেশি করতে হয়। এর ফলে প্রতিবছর বিরাট অঙ্কের বাণিজ্য ঘাটতি দেখা যায়। এ বাণিজ্য ঘাটতি পূরণের জন্য বিদেশে অবস্থিত বাংলাদেশিদের পাঠানো অর্থ ব্যবহার করা হয়। এ কারণেই মূলত বাংলাদেশকে আমদানি নির্ভর দেশ বলা হয়।

গ. নিট মুনাফার যে অংশ শেয়ারহোল্ডারদের মধ্যে বণ্টন না করে ব্যবসায় বিনিয়োগ করা হয় তাকে অবণ্টিত মুনাফা বলা হয়। উদ্দীপকে ফাইভ স্টার কর্পোরেশনের মুনাফার ২৫ লক্ষ টাকা ব্যবসায় বিনিয়োগ অবণ্টিত মুনাফা বলে। শেয়ারহোল্ডাররা লভ্যাংশ প্রাপ্তির উদ্দেশ্যে ফাইভ স্টার কর্পোরেশনে বিনিয়োগ করে। শেয়ারহোল্ডারদের কী পরিমাণ লভ্যাংশ প্রদান করা হবে সে বিষয়ে প্রতিষ্ঠানটি সিদ্ধান্ত গ্রহণের অধিকার রাখে। নিট মুনাফার সম্পূর্ণ অংশ প্রতিষ্ঠানটি যেমন শেয়ারহোল্ডারদের মধ্যে বণ্টন করে দিতে পারে তেমনি নিট মুনাফার সম্পূর্ণ অংশ প্রতিষ্ঠানটি ব্যবসায়ে বিনিয়োগ করতে পারে। ফাইভ-স্টার কর্পোরেশন ১ কোটি টাকার নিট মুনাফার মধ্যে ২৫ লক্ষ টাকা শেয়ারহোল্ডাদের মধ্যে বণ্টন করে ব্যবসায়ে বিনিয়োগ করেছে। তাই বলা যায়, বৈশিষ্ট্য ও উদ্দেশ্য বিচারে ২৫ লক্ষ টাকা ব্যবসায়ের অবণ্টিত মুনাফা।

ঘ. উদ্দীপকে বর্ণিত কোম্পানির সঞ্চিত তহবিল সৃষ্টি সম্পূর্ণ যৌক্তিক বলে আমি মনে করি। ব্যবসায়ের ভবিষ্যত্ সর্বদাই অনিশ্চিত। তাই ভবিষ্যত্ ঝুঁকি মোকাবিলার জন্যে কোম্পানি বিভিন্ন ধরনের তহবিল সৃষ্টি করে। উদ্দীপকে ফাইভ-স্টার কর্পোরেশন কোম্পানির নিট মুনাফা থেকে বিশেষ তহবিল অর্থাত্ সঞ্চিত তহবিল সৃস্টি করেছে। সাধারণত ভবিষ্যতে ব্যবসায় সম্প্রসারণের জন্য সঞ্চিত তহবিল ব্যবহার করা যায়। ফাইভ-স্টার কর্পোরেশন একটি গতিশীল প্রতিষ্ঠান। প্রতিষ্ঠানটির সম্প্রসারণের জন্য অর্থ সংকট দেখা দিলে এটি সঞ্চিতি তহবিলের টাকা ব্যবহার করতে পারবে। তাছাড়া ভবিষ্যতের যেকোনো আর্থিক বিপর্যয়ে এবং তারল্য সংকটে ফাইভ-স্টার কর্পোরেশন সঞ্চিতি তহবিলের অর্থ ব্যবহার করতে পারবে। পরিশেষে বলা যায়, সঞ্চিতি তহবিল হলো ভবিষ্যতে আর্থিক চাহিদা মেটানোর অন্যতম কৌশল। এ কৌশলটি গ্রহণ করে ফাইভ-স্টার কর্পোরেশন যুক্তিসঙ্গত সিদ্ধান্ত গ্রহণ করছে বলে আমি মনে করি।

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
icmab
facebook-recent-activity
prayer-time
১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন