ধীরে ধীরে দুর্বল হচ্ছে ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’

প্রকাশ : ১০ নভেম্বর ২০১৯, ০০:৪৪ | অনলাইন সংস্করণ

  অনলাইন ডেস্ক

পশ্চিমবঙ্গ-সুন্দরবন উপকূলে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল। ছবি: সংগৃহীত

ভারতের পশ্চিমবঙ্গ উপকূলে আঘাত হেনে কিছুটা দুর্বল হয়ে বাংলাদেশের সুন্দরবন উপকূলে আঘাত হেনেছে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল। শনিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে ১০০ থেকে ১২০ কিলোমিটার গতিতে সুন্দরবনের শরণখোলা রেঞ্জের দুবলার চরে প্রথম আঘাত হানে ঘূর্ণিঝড়টি। বর্তমানে এটি কিছুটা দুর্বল হয়ে অতি প্রবল থেকে প্রবল ঘূর্ণিঝড়ে রূপ নিয়েছে।

শনিবার সকাল ৯টায় মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ৩১০ কিলোমিটার দূরে ছিল অতি ভয়ংকর ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’। সে সময় এটি পায়রা সমুদ্র বন্দর থেকে ৩৩৫ কিলোমিটার দক্ষিণপশ্চিমে অবস্থান করছিল। ঘূর্ণিঝড়টি ঘণ্টায় প্রায় ২০ কিলোমিটার বেগে বাংলাদেশের উপকূলীয় অঞ্চলের দিকে ধেয়ে আসছিল। এর কেন্দ্রে ৭৪ কিলোমিটার এর মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ১৩০ কিলোমিটার যা দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়ার আকারে ১৫০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছিলো।

বাংলাদেশ সময় রাত ৯টায় ঘণ্টায় ১১৫ কিলোমিটার থেকে ১২৫ কিলোমিটার বাতাসের গতি নিয়ে পশ্চিমবঙ্গের সাগর দ্বীপ উপকূলে আঘাত হানে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল। এ সময় এটি ঘণ্টায় ১৩ কিলোমিটার গতি নিয়ে এগোচ্ছিলো। তবে এরপর ধীরে ধীরে দুর্বল হতে থাকে ঘূর্ণিঝড়টি। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত, এখন এটি ঘণ্টায় ১০০ থেকে ১২০ কিলোমিটার বাতাসের গতি নিয়ে অতি প্রবল থেকে প্রবল ঘূর্ণিঝড়ের রূপ নেয়, যা ঘণ্টায় ৮ কিলোমিটার গতিতে অগ্রসর হচ্ছে। আরও কিছুটা দুর্বল হয়ে এটি রবিবার ভোর নাগাদ বাংলাদেশ অতিক্রম করবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

খুলনা জেলা আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবহাওয়াবিদ আমিরুল আজাদ বলেন, 'শনিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল বাংলাদেশের সুন্দরবন উপকূলে প্রথম আঘাত হানে। রাত পৌঁনে ১২টার দিকে ঘূর্ণিঝড়টি উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগর এবং তৎসংলগ্ন গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ এবং বাংলাদেশের দক্ষিণ-পশ্চিম এলাকায় অবস্থান করছিল। এটি আরও উত্তর পূর্ব দিকে অগ্রসর হয়ে এবং এ সময় দুর্বল হয়ে শনিবার মধ্য রাত নাগাদ খুলনার সুন্দরবনের নিকট দিয়ে উপকূল অতিক্রম করতে পারে।'

পূর্ব সুন্দরবনের শরণখোলা রেঞ্জের দুবলার চর থেকে রাত পৌঁনে ১২টার দিকে দুবলা ফিসারম্যান গ্রুপের সভাপতি কামাল উদ্দীন আহমেদ জানান, রাত সাড়ে ১০টার দিকে সুন্দরবনের দুবলার চরে প্রথম ঘূর্ণিঝড় বুলবুল আঘাত হানে। তবে এর ফলে কোনো জলোচ্ছ্বাস হয়নি। স্বাভাবিক জোয়ারের চেয়ে দুই থেকে আড়াই ফুট পানির উচ্চতা বেড়েছে।

এদিকে  রাত ১১টায় আবহাওয়া অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক আয়েশা খাতুন বলেন, 'ঘূর্ণিঝড়টি বর্তমানে বঙ্গোপসাগরের পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের দক্ষিণপশ্চিম এলাকায় অবস্থান করছে। ঘূর্ণিঝড়টি উত্তরপূর্ব দিকে অগ্রসর হয়ে ক্রমশ দুর্বল হয়ে পড়বে। মধ্যরাত নাগাদ সুন্দরবনের নিকট দিয়ে উপকূল অতিক্রম করবে।'

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত, ঘূর্ণিঝড়টি সুন্দরবনের দুবলার চর উপকূল অতিক্রম করছে। এর আগে শনিবার বাংলাদেশ সময় রাত ৯টায় ঘণ্টায় ১১৫ কিলোমিটার থেকে ১২৫ কিলোমিটার বাতাসের গতি নিয়ে পশ্চিমবঙ্গের সাগর দ্বীপ উপকূলে আঘাত হানে এই ঘূর্ণিঝড়।

ইত্তেফাক/জেডএইচডি